মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ১০:২৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বারহাট্টায় উত্তেজিত যাত্রীদের ধাওয়া; স্টেশন মাস্টারের স্টেশন ত্যাগ আটপাড়ায় স্কুলের সভাপতি নির্বাচন বন্ধ করতে ২ শিক্ষককে অপহরণের অভিযোগ নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি আবশ্যক নেত্রকোণার মিডিয়া ব্যাক্তিত্ব মুখলেছের পিতা-মাতার রুহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া ও ইফতার অনুষ্ঠিত আটপাড়ায় দরপত্রে অংশ গ্রহণকারী সমিতিকে  ইজারা না দিতে আবেদন আটপাড়ায়  ঈমাম ও উলামা পরিষদের সীরাতুন্নবী ( সাঃ) অনুষ্টিত নেত্রকোনায় মাহে-রমজানের পবিত্রতা রক্ষা ও ইসরাইলী পন্য বর্জনের দাবীতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ পূর্বধলায় মাধ্যমিকে’র প্রশিক্ষণে সার্পোট স্টাফের স্বাক্ষর জালসহ টাকা আত্মসাৎ এর অভিযোগ মহুয়া সাহিত্য টিপস্

পূর্বধলায় হেলিকপ্টারে বিয়ে করতে এসে প্রশাসনের বাধায় পন্ড

রিপোর্টারের নাম:
  • আপডেট : শনিবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
  • ২০৫ পঠিত

পূর্বধলা প্রতিনিধিঃ নেত্রকোণার পূর্বধলায় হেলিকপ্টারে করে বাল্যবিবাহ করতে এসে প্রশাসনের বাধায় ফিরে যেতে হয়েছে বরকে বিয়ের প্রস্তুতিতে কোনো কিছুতেই কমতি ছিল না। কনের বাড়িতে বর এসেছিলেন হেলিকপ্টারে চড়ে। ধুমধাম বিয়ের আয়োজনে হঠাৎ হানা দেয় প্রশাসন।

অভিযোগ, অপ্রাপ্তবয়স্ক স্কুলছাত্রীকে বিয়ে করতে এসেছেন বর। প্রশাসনের বাধায় বিয়েটি আর হলো না। বরকে বিদায় নিতে হয়েছে মুচলেকা দিয়ে। শুক্রবার বিকেলে এমনই এক ঘটনা ঘটেছে নেত্রকোণার পূর্বধলা উপজেলায়। ১৫ বছর বয়সী এক স্কুলছাত্রীর বিবাহ হচ্ছে এমন খবর পেয়ে তা বন্ধ করেন পূর্বধলা উপজেলার নির্বাহী অফিসার শেখ জাহিদ হাসান প্রিন্স। এলাকাবাসী ও উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুর এলাকার আলেক মিয়ার ছেলে শাহজালাল মিয়ার (২৭) সঙ্গে নেত্রকোণার পূর্বধলা উপজেলার কান্দাপাড়া গ্রামের ইতালি প্রবাসী বাবুল তালুকদার ও মা দুবাই প্রবাসী সুমী আক্তারের মেয়ের সাথে । পারিবারিকভাবে তাদের বিয়ের তারিখ নির্ধারন হয় ২৫ ফেব্রæয়ারি শুক্রবার।

বেলা আড়াইটার দিকে বর হেলিকপ্টারে করে পূর্বধলা জগৎমনি সরকারি পাইলট উচ্ছ বিদ্যালয় ও পূর্বধলা সরকারি কলেজ মাঠে নামেন হেলিকপ্টারে।তার পাশেই ভাড়া করা জায়গায় প্যান্ডেল করা হয়েছিল। হেলিকপ্টার ও বরকে দেখতে এলাকার উৎসুক মানুষ ভিড় জমায়। বেলা তিনটার দিকে চলছিল বিয়ের আয়োজন। এরই মধ্যে উপস্থিত হন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও পূর্বধলার থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ শিবিরুল ইসলাস। বাল্যবিবাহ চলছে এমন গোপন তথ্যের ভিত্তিতে সেখানে উপস্থিত হয়ে কনের জন্ম নিবন্ধন চাওয়া হয়। এতে তাঁর বয়স উল্লেখ ছিল ১৮। পরে সেটা যাচাই-বাছাই করে জানা যায়, প্রকৃত বয়স ১৫ বছর ৮ মাস। পরে দুই পক্ষের মুচলেকা নিয়ে বিয়েটি ভেঙে দেওয়া হয়েছে। বর শাহজালাল জানান ‘আমি বিষয়টা জানতাম না। আমাকে ভুল বুঝানো হয়েছিল। আমার মা অসুস্থ, তাই মাকে হেলিকপ্টারে করে নিয়ে এসেছিলাম।’ কনের মা বলেন, তাঁর মেয়ের প্রকৃত বয়স ১৮ বছর। জন্ম নিবন্ধনে ভুলবশত কম বয়স উঠেছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার জানান, বাল্যবিবাহের খবর পেয়ে সেখানে উপস্থিত হয়ে বর ও কনের জন্মনিবন্ধন চাওয়া হয়। এতে মেয়ের বয়স ১৮ উল্লেখ ছিল । পরে সেটা অন লাইনে যাচাই-বাছাই করে জানা যায়, প্রকৃত বয়স ১৫ বছর ৮ মাস। পরে দুই পক্ষের মুচলেকা নিয়ে বিয়েটি ভেঙে দেওয়া হয়েছে এবং ১৮ না হওয়া পর্যন্ত তাদের পরিবারকে বিয়ে না দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

শেয়ার করুন:

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এক ক্লিকে বিভাগের খবর

© All rights reserved © 2021 dainikjananetra
কারিগরি সহযোগিতায় পূর্বকন্ঠ আইটি